ঢাকা ০৬:১২ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৫ জুলাই ২০২৪, ১০ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

সর্বজনীন পেনশন প্রত্যাহারের দাবিতে ফের বশেমুরকৃবি শিক্ষকবৃন্দের কর্মবিরতি 

বাংলাদেশ কণ্ঠ ডেস্ক :
  • আপডেট সময় : ০৮:২৭:৫৫ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪ ৬২ বার পঠিত
গাজীপুর প্রতিনিধি :
সর্বজনীন পেনশন অনতিবিলম্বে প্রত্যাহারের দাবিতে ধারাবাহিক আন্দোলনের অংশ হিসেবে ২ ঘন্টা কর্মবিরতি পালন করেছে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকমন্ডলী। বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি ফেডারেশনের নির্দেশক্রমে ও বশেমুরকৃবি শিক্ষক সমিতি ২০২৪ এর আয়োজনে কৃষি অনুষদ ভবনের নীচতলায় এ কর্মবিরতি পালন করা হয়। এ কর্মবিরতিকালে একটি আলোচনা সভারও আয়োজন করে বশেমুরকৃবি শিক্ষক সমিতি।
এ সময় বশেমুরকৃবি শিক্ষক সমিতির যুগ্ম—সাধারণ সম্পাদক ও গ্রামীণ উন্নয়ন বিভাগের প্রধান প্রফেসর ড. মোঃ মনজুরুল ইসলাম বলেন, ১৪ ডিসেম্বর পাক হানাদার যেমন জাতিকে মেধাশূন্য করার টার্গেট নিয়েছিল তেমনি এক কুচক্রীমহল শিক্ষাকে তথা জাতিকে ধ্বংস করার জন্য উঠে পড়ে লেগেছে। অন্যদিকে বায়োটেকনোলজি অ্যান্ড জেনেটিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের প্রফেসর ড. মোঃ তোফাজ্জল ইসলাম বিদ্যমান গ্রেডিং সিস্টেমের বৈষম্যের কথা উল্লেখপূর্বক আমলারা নিজেদের এলিট শ্রেণি ভাবে যার অপচেষ্টা হিসেবে এ ধরনের অনিয়ম চাপিয়ে দেয়া হচ্ছে বলে বিষ্ফোরক মন্তব্য করেন। আমলাদের কুটিল বুদ্ধির বহি:প্রকাশ হিসেবে এর নীলনকশা প্রণয়ন করা হয়েছে বলে ক্ষোভ প্রকাশ করেন কৃষি অনুষদের ডিন প্রফেসর ড. মোঃ আব্দুল বাছেত মিয়া।
সমাপনী বক্তব্যে বশেমুরকৃবি শিক্ষক সভাপতি প্রফেসর ড. মোঃ অহিদুজ্জামান আমেরিকার প্রসঙ্গ টেনে বলেন, আজ আমেরিকা এত উন্নত মুলত: জ্ঞান চর্চার জন্য। সুতরাং যারা শিক্ষকদের জ্ঞান চর্চাকে বাধাগ্রস্ত ও অসম্মান করতে চায় তাদের ঘৃণ্য অপচেষ্টাকে রুখতে শিক্ষক ফেডারেশনকে আরও কঠিন আন্দোলনের ডাক দেয়ার আহ্বান জানান।
এ সময় সিনিয়র শিক্ষক প্রফেসর ড. মোঃ রুহুল আমিন, প্রফেসর ড. এম. আব্দুল করিম, প্রফেসর ড. মোঃ মোর্শেদুর রহমান, প্রফেসর ড. নাসরিন আক্তার আইভী, প্রফেসর ড. মোঃ আবু আশরাফ খানসহ অনেকে প্রতিবাদী বক্তব্য রাখেন। সংশ্লিষ্ট শিক্ষকমন্ডলী বলছেন অর্থ মন্ত্রণালয় কতৃর্ক জারিকৃত এ প্রজ্ঞাপন একদিকে যেমন শিক্ষকদের জন্য হতাশাজনক পদক্ষেপ অন্যদিকে দেশের শিক্ষা ব্যবস্থাকে প্রশ্নের মুখোমুখি করিয়ে একটি ছদ্মবেশি শ্রেণি ফায়দা হাসিল করতে তৎপর। উক্ত অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন বশেমুরকৃবি শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক প্রফেসর ড. দেবাশীস চন্দ্র আচার্য্য।

সর্বজনীন পেনশন প্রত্যাহারের দাবিতে ফের বশেমুরকৃবি শিক্ষকবৃন্দের কর্মবিরতি 

আপডেট সময় : ০৮:২৭:৫৫ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪
গাজীপুর প্রতিনিধি :
সর্বজনীন পেনশন অনতিবিলম্বে প্রত্যাহারের দাবিতে ধারাবাহিক আন্দোলনের অংশ হিসেবে ২ ঘন্টা কর্মবিরতি পালন করেছে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকমন্ডলী। বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি ফেডারেশনের নির্দেশক্রমে ও বশেমুরকৃবি শিক্ষক সমিতি ২০২৪ এর আয়োজনে কৃষি অনুষদ ভবনের নীচতলায় এ কর্মবিরতি পালন করা হয়। এ কর্মবিরতিকালে একটি আলোচনা সভারও আয়োজন করে বশেমুরকৃবি শিক্ষক সমিতি।
এ সময় বশেমুরকৃবি শিক্ষক সমিতির যুগ্ম—সাধারণ সম্পাদক ও গ্রামীণ উন্নয়ন বিভাগের প্রধান প্রফেসর ড. মোঃ মনজুরুল ইসলাম বলেন, ১৪ ডিসেম্বর পাক হানাদার যেমন জাতিকে মেধাশূন্য করার টার্গেট নিয়েছিল তেমনি এক কুচক্রীমহল শিক্ষাকে তথা জাতিকে ধ্বংস করার জন্য উঠে পড়ে লেগেছে। অন্যদিকে বায়োটেকনোলজি অ্যান্ড জেনেটিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের প্রফেসর ড. মোঃ তোফাজ্জল ইসলাম বিদ্যমান গ্রেডিং সিস্টেমের বৈষম্যের কথা উল্লেখপূর্বক আমলারা নিজেদের এলিট শ্রেণি ভাবে যার অপচেষ্টা হিসেবে এ ধরনের অনিয়ম চাপিয়ে দেয়া হচ্ছে বলে বিষ্ফোরক মন্তব্য করেন। আমলাদের কুটিল বুদ্ধির বহি:প্রকাশ হিসেবে এর নীলনকশা প্রণয়ন করা হয়েছে বলে ক্ষোভ প্রকাশ করেন কৃষি অনুষদের ডিন প্রফেসর ড. মোঃ আব্দুল বাছেত মিয়া।
সমাপনী বক্তব্যে বশেমুরকৃবি শিক্ষক সভাপতি প্রফেসর ড. মোঃ অহিদুজ্জামান আমেরিকার প্রসঙ্গ টেনে বলেন, আজ আমেরিকা এত উন্নত মুলত: জ্ঞান চর্চার জন্য। সুতরাং যারা শিক্ষকদের জ্ঞান চর্চাকে বাধাগ্রস্ত ও অসম্মান করতে চায় তাদের ঘৃণ্য অপচেষ্টাকে রুখতে শিক্ষক ফেডারেশনকে আরও কঠিন আন্দোলনের ডাক দেয়ার আহ্বান জানান।
এ সময় সিনিয়র শিক্ষক প্রফেসর ড. মোঃ রুহুল আমিন, প্রফেসর ড. এম. আব্দুল করিম, প্রফেসর ড. মোঃ মোর্শেদুর রহমান, প্রফেসর ড. নাসরিন আক্তার আইভী, প্রফেসর ড. মোঃ আবু আশরাফ খানসহ অনেকে প্রতিবাদী বক্তব্য রাখেন। সংশ্লিষ্ট শিক্ষকমন্ডলী বলছেন অর্থ মন্ত্রণালয় কতৃর্ক জারিকৃত এ প্রজ্ঞাপন একদিকে যেমন শিক্ষকদের জন্য হতাশাজনক পদক্ষেপ অন্যদিকে দেশের শিক্ষা ব্যবস্থাকে প্রশ্নের মুখোমুখি করিয়ে একটি ছদ্মবেশি শ্রেণি ফায়দা হাসিল করতে তৎপর। উক্ত অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন বশেমুরকৃবি শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক প্রফেসর ড. দেবাশীস চন্দ্র আচার্য্য।