ঢাকা ০৯:৩৭ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০২৪, ৩০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

দিল্লিতে তাপমাত্রা ছাড়ালো প্রায় ৪৮ ডিগ্রি, ‘রেড অ্যালার্ট’ জারি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:
  • আপডেট সময় : ০১:৫৭:০৯ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২১ মে ২০২৪ ২৪ বার পঠিত

ভারতের রাজধানী নয়াদিল্লিসহ অধিকাংশ অঞ্চলে তাপমাত্রা ৪৭.৮ ডিগ্রি সেলসিয়াসে পৌঁছেছে। এমন পরিস্থিতিতে পাঁচ দিনের রেড অ্যালার্ট জারি করেছে দিল্লি রাজ্য সরকার। গতকাল সোমবার থেকে এই রেড অ্যালার্ট এর মেয়াদ শুরু হয়েছে। ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

গত রবিবার (১৯ মে) দিল্লির নজফগড় জেলায় ৪৭.৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে। চলতি মৌসুমে এটিই দেশটির সর্বোচ্চ তাপমাত্রা। চলতি সপ্তাহেও তাপপ্রবাহ অব্যাহত থাকতে পারে বলে জানিয়েছে ভারতের আবহাওয়া অধিদপ্তর।

তীব্র তাপপ্রবাহের জেরে ইতিমধ্যেই দিল্লিতে বিদ্যুতের চাহিদা শীর্ষে পৌঁছেছে। যে স্কুলগুলিতে এখনও গ্রীষ্মকালীন ছুটি ঘোষণা করা হয়নি, দিল্লি রাজ্য সরকার সোমবার একটি রেড অ্যালার্ট জারি করেছে এবং সেই স্কুলগুলিকে অবিলম্বে ছুটি ঘোষণা করার নির্দেশ দিয়েছে।

গ্রীষ্মকালে দিল্লির তাপমাত্রা সাধারণত ৪০ ডিগ্রি বা তার উপরে থাকে। তবে এই গ্রীষ্মে যে তাপ পড়েছে তা স্বাভাবিক নয় বলে জানিয়েছেন নয়াদিল্লি আবহাওয়া দফতরের (আইএমডি) কর্মকর্তারা। বিশেষ করে ভারতের রাজধানী ও এর আশপাশের এলাকায় গত চার দিনে প্রতিদিনই তাপমাত্রা বেড়েছে।

শুক্রবার ভারতের আবহাওয়া অধিদপ্তর (আইএমডি) জারি করা পূর্বাভাস অনুসারে, আগামী পাঁচ দিন রাজস্থান, পাঞ্জাব, উত্তর প্রদেশ, হরিয়ানায় তাপপ্রবাহ অব্যাহত থাকবে।

আগামী চার দিন তাপপ্রবাহ চলবে মধ্যপ্রদেশ ও বিহারে। পশ্চিমবঙ্গে ১৮ ও ২০ মে তাপপ্রবাহের পূর্বাভাস থাকছে। ওড়িশার জন্য এটি ২০ ও ২১ তারিখ। ঝাড়খণ্ডে তাপপ্রবাহের পূর্বাভাস ১৯ ও ২০ মে রয়েছে।

ভারতীয় আবহাওয়া অধিদপ্তর আরও বলেছে যে এই বছর দেশটি দীর্ঘতর এবং আরও তীব্র তাপপ্রবাহের দ্বারা আক্রান্ত হতে পারে। শনিবার জাতীয় রাজধানী অঞ্চলের (এনসিআর) ১০টি অঞ্চলে তাপমাত্রা ৪৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস অতিক্রম করেছে। রাজধানী দিল্লি ছাড়াও এতে পার্শ্ববর্তী উত্তর প্রদেশ, হরিয়ানা এবং রাজস্থানের বিভিন্ন জেলা অন্তর্ভুক্ত রয়েছে।

দিল্লিতে তাপমাত্রা ছাড়ালো প্রায় ৪৮ ডিগ্রি, ‘রেড অ্যালার্ট’ জারি

আপডেট সময় : ০১:৫৭:০৯ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২১ মে ২০২৪

ভারতের রাজধানী নয়াদিল্লিসহ অধিকাংশ অঞ্চলে তাপমাত্রা ৪৭.৮ ডিগ্রি সেলসিয়াসে পৌঁছেছে। এমন পরিস্থিতিতে পাঁচ দিনের রেড অ্যালার্ট জারি করেছে দিল্লি রাজ্য সরকার। গতকাল সোমবার থেকে এই রেড অ্যালার্ট এর মেয়াদ শুরু হয়েছে। ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

গত রবিবার (১৯ মে) দিল্লির নজফগড় জেলায় ৪৭.৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে। চলতি মৌসুমে এটিই দেশটির সর্বোচ্চ তাপমাত্রা। চলতি সপ্তাহেও তাপপ্রবাহ অব্যাহত থাকতে পারে বলে জানিয়েছে ভারতের আবহাওয়া অধিদপ্তর।

তীব্র তাপপ্রবাহের জেরে ইতিমধ্যেই দিল্লিতে বিদ্যুতের চাহিদা শীর্ষে পৌঁছেছে। যে স্কুলগুলিতে এখনও গ্রীষ্মকালীন ছুটি ঘোষণা করা হয়নি, দিল্লি রাজ্য সরকার সোমবার একটি রেড অ্যালার্ট জারি করেছে এবং সেই স্কুলগুলিকে অবিলম্বে ছুটি ঘোষণা করার নির্দেশ দিয়েছে।

গ্রীষ্মকালে দিল্লির তাপমাত্রা সাধারণত ৪০ ডিগ্রি বা তার উপরে থাকে। তবে এই গ্রীষ্মে যে তাপ পড়েছে তা স্বাভাবিক নয় বলে জানিয়েছেন নয়াদিল্লি আবহাওয়া দফতরের (আইএমডি) কর্মকর্তারা। বিশেষ করে ভারতের রাজধানী ও এর আশপাশের এলাকায় গত চার দিনে প্রতিদিনই তাপমাত্রা বেড়েছে।

শুক্রবার ভারতের আবহাওয়া অধিদপ্তর (আইএমডি) জারি করা পূর্বাভাস অনুসারে, আগামী পাঁচ দিন রাজস্থান, পাঞ্জাব, উত্তর প্রদেশ, হরিয়ানায় তাপপ্রবাহ অব্যাহত থাকবে।

আগামী চার দিন তাপপ্রবাহ চলবে মধ্যপ্রদেশ ও বিহারে। পশ্চিমবঙ্গে ১৮ ও ২০ মে তাপপ্রবাহের পূর্বাভাস থাকছে। ওড়িশার জন্য এটি ২০ ও ২১ তারিখ। ঝাড়খণ্ডে তাপপ্রবাহের পূর্বাভাস ১৯ ও ২০ মে রয়েছে।

ভারতীয় আবহাওয়া অধিদপ্তর আরও বলেছে যে এই বছর দেশটি দীর্ঘতর এবং আরও তীব্র তাপপ্রবাহের দ্বারা আক্রান্ত হতে পারে। শনিবার জাতীয় রাজধানী অঞ্চলের (এনসিআর) ১০টি অঞ্চলে তাপমাত্রা ৪৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস অতিক্রম করেছে। রাজধানী দিল্লি ছাড়াও এতে পার্শ্ববর্তী উত্তর প্রদেশ, হরিয়ানা এবং রাজস্থানের বিভিন্ন জেলা অন্তর্ভুক্ত রয়েছে।