ঢাকা ০৬:৩২ অপরাহ্ন, সোমবার, ২০ মে ২০২৪, ৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

দিনাজপুরে ত্রিভূজ প্রেমের সুত্র ধরে কলেজ ছাত্র হত্যা

বাংলাদেশ কণ্ঠ ডেস্ক :
  • আপডেট সময় : ০৫:২৫:১৩ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৯ মার্চ ২০২৩ ৫ বার পঠিত

চৌধুরী নুপুর নাহার তাজ ,দিনাজপুর জেলা প্রতিনিধি:
দিনাজপুরে ত্রিভুজ প্রেমের সুত্র ধরে কলেজ ছাত্র শাহরিন বিপুল হত্যাকান্ডের ঘটনায় মুল হত্যাকারীসহ মোট ৪ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। আটককৃতরা হলো দেলোয়ার হোসেন ও তার সহযোগী শাকিব শাহরিয়ার, আশরাফুল হোসেন মিলন, আসিফ মাহমুদ হৃদয়।  আজ দুপুরে সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন পুলিশ সুপার শাহ ইফতেখার আহমেদ ।
তিনি জানান, আটক দেলোয়ারের সাথে এক মেয়ের সম্পর্ক ছিল। এসব জানাজানির পর ঐ মেয়ের বাড়ি থেকে বের হওয়া বন্ধ হয়ে যায়। তবে খোঁজ খবর নিতে দেলোয়ার হোসেন আশ্রয় নেয় প্রেমিকার বান্ধবীর।একপর্যায়ে ঐ বান্ধবীর সাথে সম্পর্ক গড়ে ওঠে। তবে ঐ বান্ধবীর প্রেমের সম্পর্ক ছিল শাহরিন বিপুলের সাথে, যা দেলোয়ার মেনে নিতে পারছিলো না । পরে দেলোয়ার একটি ফেইক আইডি খুলে বিপুলের সাথে কথা বলে বিশ্বাস অর্জণ করে।একপর্যায়ে গত ৪ তারিখ সকালে ক্যামেরা ধার দেওয়ার কথা বলে তাকে স্টেডিয়ামে ডেকে নেয়।পরে ওৎ পেতে থাকা দেলোয়ার ও তার সহযোগিরা বিপুলের সাথে তর্কাতর্কির এক পর্যায়ে মাথার পিছনে ও গলায় ছুরিকাঘাত করে মেরে ফেলে আবর্জনা দিয়ে ঢেকে রাখে।

দিনাজপুরে ত্রিভূজ প্রেমের সুত্র ধরে কলেজ ছাত্র হত্যা

আপডেট সময় : ০৫:২৫:১৩ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৯ মার্চ ২০২৩

চৌধুরী নুপুর নাহার তাজ ,দিনাজপুর জেলা প্রতিনিধি:
দিনাজপুরে ত্রিভুজ প্রেমের সুত্র ধরে কলেজ ছাত্র শাহরিন বিপুল হত্যাকান্ডের ঘটনায় মুল হত্যাকারীসহ মোট ৪ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। আটককৃতরা হলো দেলোয়ার হোসেন ও তার সহযোগী শাকিব শাহরিয়ার, আশরাফুল হোসেন মিলন, আসিফ মাহমুদ হৃদয়।  আজ দুপুরে সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন পুলিশ সুপার শাহ ইফতেখার আহমেদ ।
তিনি জানান, আটক দেলোয়ারের সাথে এক মেয়ের সম্পর্ক ছিল। এসব জানাজানির পর ঐ মেয়ের বাড়ি থেকে বের হওয়া বন্ধ হয়ে যায়। তবে খোঁজ খবর নিতে দেলোয়ার হোসেন আশ্রয় নেয় প্রেমিকার বান্ধবীর।একপর্যায়ে ঐ বান্ধবীর সাথে সম্পর্ক গড়ে ওঠে। তবে ঐ বান্ধবীর প্রেমের সম্পর্ক ছিল শাহরিন বিপুলের সাথে, যা দেলোয়ার মেনে নিতে পারছিলো না । পরে দেলোয়ার একটি ফেইক আইডি খুলে বিপুলের সাথে কথা বলে বিশ্বাস অর্জণ করে।একপর্যায়ে গত ৪ তারিখ সকালে ক্যামেরা ধার দেওয়ার কথা বলে তাকে স্টেডিয়ামে ডেকে নেয়।পরে ওৎ পেতে থাকা দেলোয়ার ও তার সহযোগিরা বিপুলের সাথে তর্কাতর্কির এক পর্যায়ে মাথার পিছনে ও গলায় ছুরিকাঘাত করে মেরে ফেলে আবর্জনা দিয়ে ঢেকে রাখে।