ঢাকা ০৭:৩৫ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২৫ মে ২০২৪, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম :
Logo নরসিংদীতে সংবর্ধনা নেওয়ার সময় ভূয়া ম্যাজিস্ট্রেট আটক, তিন মাসের সাজা Logo দেশের বাজারে বয়া এর নতুন অল ইন ওয়ান ওয়ারলেস মাইক্রোফোন Logo সাড়ে চারশ কোটির হীরার নেকলেসে নজর কাড়লেন প্রিয়াঙ্কা Logo  পৃথিবীতে কোন দেশের মেয়েরা সবচেয়ে বেশি সুন্দরী Logo বাংলাদেশ ব্যাংকে সাংবাদিক প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা দেশের গণতন্ত্র-মৌলিক অধিকারের পরিপন্থী Logo ঈদের সময় ১১ দিন বাল্কহেড চলাচল বন্ধ Logo বিএসআরএফ বার্তা’র মোড়ক উম্মোচন করলেন তথ্য প্রতিমন্ত্রী Logo টানা ছয় ম্যাচ জিতে প্লে অফ নিশ্চিত করলেও শেষমেশ বিদায় নিলো বেঙ্গালুরু Logo গাজায় মসজিদে ইসরায়েলি হামলা, ১০ শিশুসহ নিহত ১৬ Logo এমপি আনোয়ারুল হত্যাকাণ্ড: ঢাকায় আসছে ভারতীয় পুলিশের স্পেশাল টিম

ডিজিটাল সিকিউরিটি অ্যাক্টে লাবলু ও শামসের বিরুদ্ধে করা মামলা প্রত্যাহারের দাবি

বাংলাদেশ কণ্ঠ ডেস্ক :
  • আপডেট সময় : ০৪:০২:৪০ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৪ এপ্রিল ২০২৩ ১০ বার পঠিত

নিজস্ব প্রতিবেদক:
ডিজিটাল সিকিউরিটি অ্যাক্টে দুই সাংবাদিকের বিরুদ্ধে দায়ের করা হয়রানিমূলক মিথ্যা মামলা অবিলম্বে প্রত্যাহারের দাবি জানিয়েছেন ঢাকায় কর্মরত মানিকগঞ্জ সাংবাদিক পরিবারের সদস্যরা।
আজ বেলা ১২টায় ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটি (ডিআরইউ) চত্ত্বরে যুগান্তরের বিশেষ প্রতিনিধি মাহবুব আলম লাবলু ও প্রথম আলোর নিজস্ব প্রতিবেদক শামসুজ্জামান শামসের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে দায়েরকৃত হয়রানিমূলক মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে আয়োজিত এক মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশে এই দাবি জানান বক্তারা। মানববন্ধন কর্মসূচীতে বক্তব্য রাখেন, ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির (ডিআরইউ) সাবেক সভাপতি সাখাওয়াত হোসেন বাদশা, বাংলাদেশ ক্রাইম রিপোর্টার্স এসোসিয়েশনের (ক্র্যাব) সাধারণ সম্পাদক মামুনূর রশীদ, সিনিয়র সাংবাদিক দুলাল খান, সিনিয়র সাংবাদিক খন্দকার হানিফ রাজা, সিনিয়র সাংবাদিক এমদাদুল হক খান, বিডি নিউজ ২৪ ডটকমের সিনিয়র রিপোর্টার গোলাম মুজতবা ধ্রুব, দেওয়ান মাসুদা সুলতানাসহ অন্যান্যরা।
কর্মসূচীতে বক্তারা বলেন, বর্তমান প্রধানমন্ত্রী সাংবাদিকবান্ধব হলেও তার আশপাশে থাকা চাটুকার ও স্বার্থান্বেষী মহল সাংবাদিকদের সরকারের বিরুদ্ধে দাঁড় করানোর চেষ্টা করছে। তাদের ব্যাপারে সকলকে সতর্ক থাকতে হবে। তাদেরই প্ররোচনায় সাংবাদিক নির্যাতন ও হয়রানিমূলক মামলা দেয়া হচ্ছে। যা কোনোভাবেই কাম্য নয়। তাছাড়াও সরকারের একাধিক মন্ত্রী বলেছিলেন, এই নিপীড়নমূলক ডিজিটাল সিকিউরিটি অ্যাক্টে কোনো সাংবাদিককে হয়রানি করা হবে না। কিন্তু বাস্তবতা সম্পূর্ণ ভিন্ন। প্রতিনিয়ত এই কালো আইনে সাংবাদিকদের হয়রানি করা হচ্ছে। তাই অনতিবিলম্বে এই কালো আইনে যুগান্তরের বিশেষ প্রতিনিধি মাহবুব আলম লাবলু ও প্রথম আলোর নিজস্ব প্রতিবেদক শামসুজ্জামান শামসের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত হয়রানি ও নিপীড়নমূলক মামলা প্রত্যাহারের দাবি জানানো হয়।
বক্তারা আরো বলেন, স্বাধীন সাংবাদিকতার বিষফোঁড়া ডিজিটাল সিকিউরিটি অ্যাক্ট বাতিল করে সাংবাদিকদের দুর্ভোগ থেকে রক্ষা করা জরুরী। দেশ ও দেশের মানুষের তথ্য জানার ও জানানোর অধিকার সমুন্নত রাখতে সংশ্লিষ্টদের প্রতি জোড় দাবি জানান বক্তারা।

ডিজিটাল সিকিউরিটি অ্যাক্টে লাবলু ও শামসের বিরুদ্ধে করা মামলা প্রত্যাহারের দাবি

আপডেট সময় : ০৪:০২:৪০ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৪ এপ্রিল ২০২৩

নিজস্ব প্রতিবেদক:
ডিজিটাল সিকিউরিটি অ্যাক্টে দুই সাংবাদিকের বিরুদ্ধে দায়ের করা হয়রানিমূলক মিথ্যা মামলা অবিলম্বে প্রত্যাহারের দাবি জানিয়েছেন ঢাকায় কর্মরত মানিকগঞ্জ সাংবাদিক পরিবারের সদস্যরা।
আজ বেলা ১২টায় ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটি (ডিআরইউ) চত্ত্বরে যুগান্তরের বিশেষ প্রতিনিধি মাহবুব আলম লাবলু ও প্রথম আলোর নিজস্ব প্রতিবেদক শামসুজ্জামান শামসের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে দায়েরকৃত হয়রানিমূলক মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে আয়োজিত এক মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশে এই দাবি জানান বক্তারা। মানববন্ধন কর্মসূচীতে বক্তব্য রাখেন, ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির (ডিআরইউ) সাবেক সভাপতি সাখাওয়াত হোসেন বাদশা, বাংলাদেশ ক্রাইম রিপোর্টার্স এসোসিয়েশনের (ক্র্যাব) সাধারণ সম্পাদক মামুনূর রশীদ, সিনিয়র সাংবাদিক দুলাল খান, সিনিয়র সাংবাদিক খন্দকার হানিফ রাজা, সিনিয়র সাংবাদিক এমদাদুল হক খান, বিডি নিউজ ২৪ ডটকমের সিনিয়র রিপোর্টার গোলাম মুজতবা ধ্রুব, দেওয়ান মাসুদা সুলতানাসহ অন্যান্যরা।
কর্মসূচীতে বক্তারা বলেন, বর্তমান প্রধানমন্ত্রী সাংবাদিকবান্ধব হলেও তার আশপাশে থাকা চাটুকার ও স্বার্থান্বেষী মহল সাংবাদিকদের সরকারের বিরুদ্ধে দাঁড় করানোর চেষ্টা করছে। তাদের ব্যাপারে সকলকে সতর্ক থাকতে হবে। তাদেরই প্ররোচনায় সাংবাদিক নির্যাতন ও হয়রানিমূলক মামলা দেয়া হচ্ছে। যা কোনোভাবেই কাম্য নয়। তাছাড়াও সরকারের একাধিক মন্ত্রী বলেছিলেন, এই নিপীড়নমূলক ডিজিটাল সিকিউরিটি অ্যাক্টে কোনো সাংবাদিককে হয়রানি করা হবে না। কিন্তু বাস্তবতা সম্পূর্ণ ভিন্ন। প্রতিনিয়ত এই কালো আইনে সাংবাদিকদের হয়রানি করা হচ্ছে। তাই অনতিবিলম্বে এই কালো আইনে যুগান্তরের বিশেষ প্রতিনিধি মাহবুব আলম লাবলু ও প্রথম আলোর নিজস্ব প্রতিবেদক শামসুজ্জামান শামসের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত হয়রানি ও নিপীড়নমূলক মামলা প্রত্যাহারের দাবি জানানো হয়।
বক্তারা আরো বলেন, স্বাধীন সাংবাদিকতার বিষফোঁড়া ডিজিটাল সিকিউরিটি অ্যাক্ট বাতিল করে সাংবাদিকদের দুর্ভোগ থেকে রক্ষা করা জরুরী। দেশ ও দেশের মানুষের তথ্য জানার ও জানানোর অধিকার সমুন্নত রাখতে সংশ্লিষ্টদের প্রতি জোড় দাবি জানান বক্তারা।