ঢাকা ০৯:১২ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০২৪, ৩০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

জাতিসংঘে গাজায় যুদ্ধবিরতির প্রস্তাব পাস

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:
  • আপডেট সময় : ০১:৫৬:৫৫ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১১ জুন ২০২৪ ১১ বার পঠিত

ফিলিস্তিনের গাজায় যুদ্ধবিরতির প্রস্তাব দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদে প্রস্তাবটি পাস হয়েছে। ১৫ সদস্যের মধ্যে প্রস্তাবের পক্ষে ভোট পড়েছে ১৪টি। ভোট দেওয়া থেকে বিরত ছিল শুধু রাশিয়া।

গত ৩১ মে গাজায় তিন ধাপে যুদ্ধবিরতি কার্যকরের এ প্রস্তাব দেন প্রেসিডেন্ট বাইডেন। সোমবার প্রস্তাবটির ওপর নিরাপত্তা পরিষদে ভোটাভুটি হয়।

গাজায় যুদ্ধবিরতির এই প্রস্তাবটি এমন সময়ে পাস করা হয়েছে যখন ইসরায়েলের নির্বিচার হামলায় ৩৭,০০০ এরও বেশি ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছে। অবরুদ্ধ উপত্যকার অর্ধেক বাড়িঘর ও স্থাপনা ধ্বংস হয়ে গেছে বলে জানিয়েছে জাতিসংঘ।

জাতিসংঘে মার্কিন রাষ্ট্রদূত লিন্ডা থমাস-গ্রিনফিল্ড অবিলম্বে যুদ্ধবিরতি প্রস্তাব মেনে নিতে ইসরাইল ও হামাসকে আহ্বান জানিয়েছেন। তিনি এই যুদ্ধবিরতি প্রস্তাবকে নতুন সুযোগ বলেও অভিহিত করেছেন।

এদিকে, নিরাপত্তা পরিষদে পাস হওয়া যুদ্ধবিরতির প্রস্তাবকে স্বাগত জানিয়েছে ফিলিস্তিনের স্বাধীনতাকামী সংগঠন হামাস। তবে নিরাপত্তা পরিষদে পাস হওয়া যুদ্ধবিরতির প্রস্তাব নিয়ে তাৎক্ষণিক কোনো মন্তব্য করেনি ইসরায়েল।

জাতিসংঘে গাজায় যুদ্ধবিরতির প্রস্তাব পাস

আপডেট সময় : ০১:৫৬:৫৫ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১১ জুন ২০২৪

ফিলিস্তিনের গাজায় যুদ্ধবিরতির প্রস্তাব দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদে প্রস্তাবটি পাস হয়েছে। ১৫ সদস্যের মধ্যে প্রস্তাবের পক্ষে ভোট পড়েছে ১৪টি। ভোট দেওয়া থেকে বিরত ছিল শুধু রাশিয়া।

গত ৩১ মে গাজায় তিন ধাপে যুদ্ধবিরতি কার্যকরের এ প্রস্তাব দেন প্রেসিডেন্ট বাইডেন। সোমবার প্রস্তাবটির ওপর নিরাপত্তা পরিষদে ভোটাভুটি হয়।

গাজায় যুদ্ধবিরতির এই প্রস্তাবটি এমন সময়ে পাস করা হয়েছে যখন ইসরায়েলের নির্বিচার হামলায় ৩৭,০০০ এরও বেশি ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছে। অবরুদ্ধ উপত্যকার অর্ধেক বাড়িঘর ও স্থাপনা ধ্বংস হয়ে গেছে বলে জানিয়েছে জাতিসংঘ।

জাতিসংঘে মার্কিন রাষ্ট্রদূত লিন্ডা থমাস-গ্রিনফিল্ড অবিলম্বে যুদ্ধবিরতি প্রস্তাব মেনে নিতে ইসরাইল ও হামাসকে আহ্বান জানিয়েছেন। তিনি এই যুদ্ধবিরতি প্রস্তাবকে নতুন সুযোগ বলেও অভিহিত করেছেন।

এদিকে, নিরাপত্তা পরিষদে পাস হওয়া যুদ্ধবিরতির প্রস্তাবকে স্বাগত জানিয়েছে ফিলিস্তিনের স্বাধীনতাকামী সংগঠন হামাস। তবে নিরাপত্তা পরিষদে পাস হওয়া যুদ্ধবিরতির প্রস্তাব নিয়ে তাৎক্ষণিক কোনো মন্তব্য করেনি ইসরায়েল।