ঢাকা ১১:১৩ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০২৪, ৩০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

এমপি আনোয়ারুল হত্যাকাণ্ড

ইদানিং বাংলাদেশের অনেক সন্ত্রাসী কাঠমান্ডুকে ব্যবহার করছে:ডিবি প্রধান

বাংলাদেশ কণ্ঠ ডেস্ক :
  • আপডেট সময় : ০১:৪১:৪৭ অপরাহ্ন, শনিবার, ১ জুন ২০২৪ ৩৮ বার পঠিত

ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) প্রধান মোহাম্মদ হারুন অর রশিদ জানান, শাহীনের সহকারী সিয়ামকে নেপালে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। হত্যাকাণ্ড সংগঠিত হওয়ার পর অন্য আসামিরাও নেপালে যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। ইদানীং অনেক বাংলাদেশী সন্ত্রাসী কাঠমান্ডু ব্যবহার করছে।

শনিবার (১ জুন) সকালে হত্যাকাণ্ডের তদন্তে নেপালের উদ্দেশ্যে রওনা দেয় ডিবির একটি দল। এ সময় ঢাকার শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন হারুন অর রশিদ।

তিনি বলেন, এমপি আনার হত্যাকাণ্ডে জড়িত কেউ কাঠমান্ডু থাকতে পারে। আবার কেউ সেখান থেকে অন্য দেশে চলে যেতে পারে। আগেও সন্ত্রাসীরা নেপালে পালিয়ে থেকেছে। অনেক আসামি কাঠমান্ডুকে রুট হিসেবে ব্যবহার করে সেখানে থাকে।

হারুন আরও বলেন, ইতোমধ্যে ইন্টারপোলকে চিঠি দেওয়া হয়েছে। কাঠমান্ডু পুলিশের সাথে তথ্য আদান-প্রদান চলছে। এ হত্যাকাণ্ডে এ পর্যন্ত গ্রেফতার চার আসামিকে জিজ্ঞাসাবাদে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য পাওয়া গেছে। সেগুলো ক্রস চেক করতে নেপাল যাচ্ছি।

প্রসঙ্গত, সাংসদ আনোয়ারুল আজিম আনার হত্যাকাণ্ডের ‘মাস্টারমাইন্ড’ আকতারুজ্জামান শাহীনও কাঠমান্ডুর মাটি ব্যবহার করে অন্য দেশে চলে গেছেন।

এমপি আনোয়ারুল হত্যাকাণ্ড

ইদানিং বাংলাদেশের অনেক সন্ত্রাসী কাঠমান্ডুকে ব্যবহার করছে:ডিবি প্রধান

আপডেট সময় : ০১:৪১:৪৭ অপরাহ্ন, শনিবার, ১ জুন ২০২৪

ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) প্রধান মোহাম্মদ হারুন অর রশিদ জানান, শাহীনের সহকারী সিয়ামকে নেপালে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। হত্যাকাণ্ড সংগঠিত হওয়ার পর অন্য আসামিরাও নেপালে যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। ইদানীং অনেক বাংলাদেশী সন্ত্রাসী কাঠমান্ডু ব্যবহার করছে।

শনিবার (১ জুন) সকালে হত্যাকাণ্ডের তদন্তে নেপালের উদ্দেশ্যে রওনা দেয় ডিবির একটি দল। এ সময় ঢাকার শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন হারুন অর রশিদ।

তিনি বলেন, এমপি আনার হত্যাকাণ্ডে জড়িত কেউ কাঠমান্ডু থাকতে পারে। আবার কেউ সেখান থেকে অন্য দেশে চলে যেতে পারে। আগেও সন্ত্রাসীরা নেপালে পালিয়ে থেকেছে। অনেক আসামি কাঠমান্ডুকে রুট হিসেবে ব্যবহার করে সেখানে থাকে।

হারুন আরও বলেন, ইতোমধ্যে ইন্টারপোলকে চিঠি দেওয়া হয়েছে। কাঠমান্ডু পুলিশের সাথে তথ্য আদান-প্রদান চলছে। এ হত্যাকাণ্ডে এ পর্যন্ত গ্রেফতার চার আসামিকে জিজ্ঞাসাবাদে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য পাওয়া গেছে। সেগুলো ক্রস চেক করতে নেপাল যাচ্ছি।

প্রসঙ্গত, সাংসদ আনোয়ারুল আজিম আনার হত্যাকাণ্ডের ‘মাস্টারমাইন্ড’ আকতারুজ্জামান শাহীনও কাঠমান্ডুর মাটি ব্যবহার করে অন্য দেশে চলে গেছেন।