ঢাকা ০৭:০৪ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২৫ মে ২০২৪, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম :
Logo নরসিংদীতে সংবর্ধনা নেওয়ার সময় ভূয়া ম্যাজিস্ট্রেট আটক, তিন মাসের সাজা Logo দেশের বাজারে বয়া এর নতুন অল ইন ওয়ান ওয়ারলেস মাইক্রোফোন Logo সাড়ে চারশ কোটির হীরার নেকলেসে নজর কাড়লেন প্রিয়াঙ্কা Logo  পৃথিবীতে কোন দেশের মেয়েরা সবচেয়ে বেশি সুন্দরী Logo বাংলাদেশ ব্যাংকে সাংবাদিক প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা দেশের গণতন্ত্র-মৌলিক অধিকারের পরিপন্থী Logo ঈদের সময় ১১ দিন বাল্কহেড চলাচল বন্ধ Logo বিএসআরএফ বার্তা’র মোড়ক উম্মোচন করলেন তথ্য প্রতিমন্ত্রী Logo টানা ছয় ম্যাচ জিতে প্লে অফ নিশ্চিত করলেও শেষমেশ বিদায় নিলো বেঙ্গালুরু Logo গাজায় মসজিদে ইসরায়েলি হামলা, ১০ শিশুসহ নিহত ১৬ Logo এমপি আনোয়ারুল হত্যাকাণ্ড: ঢাকায় আসছে ভারতীয় পুলিশের স্পেশাল টিম

আখাউড়া দিয়ে ভারতে যাওয়ার সময় হত্যা মামলার আসামি আটক

বাংলাদেশ কণ্ঠ ডেস্ক :
  • আপডেট সময় : ০৭:১৯:৩৮ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৭ জানুয়ারী ২০২৩ ৯ বার পঠিত

মনিরুজ্জামান মনির, ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধিঃ

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়া স্থলবন্দর দিয়ে পালিয়ে যাওয়ার সময় মঙ্গলবার সকালে মো. স্বপন মিয়া নামে এক ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করেছে ইমিগ্রেশন পুলিশ।

স্বপন মিয়া একটি হত্যা মামলার আসামি। স্বপন মিয়া কুমিল্লার তিতাস উপজেলার মানিককান্দি গ্রামের সাইফুল ইসলামের ছেলে,সে বন্দরে ব্ল্যাক লিস্টেড আসামী ছিলেন। তাকে আখাউড়া থানা পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

ইমিগ্রেশন পুলিশের কর্মকর্তা দেওয়ান মোর্শেদুল ইসলাম জানান, ভারতে যাওয়ার সময় তার পাসপোর্ট চেক করা হয়। তার বিষয়ে মামলা থাকার বিষয়টি নিশ্চিত হয়ে গ্রেপ্তার করা হয়।

 

ট্যাগস :

আখাউড়া দিয়ে ভারতে যাওয়ার সময় হত্যা মামলার আসামি আটক

আপডেট সময় : ০৭:১৯:৩৮ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৭ জানুয়ারী ২০২৩

মনিরুজ্জামান মনির, ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধিঃ

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়া স্থলবন্দর দিয়ে পালিয়ে যাওয়ার সময় মঙ্গলবার সকালে মো. স্বপন মিয়া নামে এক ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করেছে ইমিগ্রেশন পুলিশ।

স্বপন মিয়া একটি হত্যা মামলার আসামি। স্বপন মিয়া কুমিল্লার তিতাস উপজেলার মানিককান্দি গ্রামের সাইফুল ইসলামের ছেলে,সে বন্দরে ব্ল্যাক লিস্টেড আসামী ছিলেন। তাকে আখাউড়া থানা পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

ইমিগ্রেশন পুলিশের কর্মকর্তা দেওয়ান মোর্শেদুল ইসলাম জানান, ভারতে যাওয়ার সময় তার পাসপোর্ট চেক করা হয়। তার বিষয়ে মামলা থাকার বিষয়টি নিশ্চিত হয়ে গ্রেপ্তার করা হয়।